জি এম মনিরুজ্জামান সাতক্ষীরা প্রতিনিধিঃ
সাতক্ষীরার শ্যামনগর উপজেলার সোরা গ্রামে দুই সন্তানের জননী তাজকিয়া খাতুনকে কুপিয়ে হত্যার ঘটনায় প্রধান আসামি সাহেব আলীকে (৩০) গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব -৬ এর সাতক্ষীরা ক্যাম্পের সদস্যরা । রাজধানী ঢাকার সাভার মডেল থানাধীন রাজফুল বাড়িয়া এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে ।
গ্রেপ্তার সাহেব আলী শ্যামনগর উপজেলার সোলেমান খাঁর ছেলে।

মঙ্গলবার (১৬ আগস্ট) দুপুরে র‌্যাব-৬ (সিপিসি-১) কার্যালয় এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে একথা জানায়।

র‌্যাব-৬ জানায়, পূর্ব শত্রুতার জেরধরে গত ২৪ জুলাই সাতক্ষীরার শ্যামনগর উপজেলার সোরা গ্রামের তাজকিয়া খাতুনকে কুপিয়ে হত্যা করে সাহেব আলীসহ আরও কয়েকজন। এঘটনায় নিহতের ভাই আব্দুল্লাহ বাবু বাদী হয়ে শ্যামনগর থানায় ১০ জনের নাম উল্লেখ করে ও অজ্ঞাতনামা ৬/৭ জনের বিরুদ্ধে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন।

পরে ঘটনাটি বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রচারের পর জনমনে ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি করে। সংগঠিত হত্যার ঘটনায় জড়িতদের আইনের আওতায় আনার লক্ষ্যে র‌্যাব-৬ এর একটি অভিযানিক দল গোয়েন্দা তৎপরতা শুরু করে এবং আসামিদের গ্রেপ্তারের উদেশ্যে অভিযান অব্যহত রাখে।

এর একপর্যায়ে ১৫ আগষ্ট ভোররাতে র‌্যাব-৬ ও র‌্যাব-৪ এর একটি যৌথ আভিযানিক দল গোপন সংবাদের মাধ্যমে জানতে পারে যে, উক্ত চাঞ্চল্যকর তাজকিয়া হত্যা মামলার প্রধান আসামি ঢাকার সাভার মডেল থানা এলাকায় অবস্থান করছে। প্রাপ্ত সংবাদের ভিত্তিতে তাৎক্ষণিক র‌্যাবের একটি আভিযানিক দল ওই এলাকায় অভিযান চালায়। এসময় সাভার মডেল থানাধীন রাজফুল বাড়িয়া এলাকা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। গ্রেপ্তারকৃত আসামির বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য তাকে শ্যামনগর থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।