মোঃ লোকমান হোসেন বলেনঃ
এ সংক্রান্ত বিষয়ে মেয়ের বাবা থানায় একটি লিখিত অিভেযাগ দায়ের করেন।

থানা ও পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, আজ
(বৃহস্পিতবার) ভোর ৬টার দিকে কালীগঞ্জ পৌর এলাকার ৭ নং
ওয়ার্ড উত্তরগাঁও কোনা পাড়া এলাকা মানিক মিয়ার ছেলে ঈমান আলী ও বাহাদুরসাদী জুগুলী এলাকার আব্দুল মজিদের মেয়ে মিনজু আক্তার(১৯) ঘরের আড়ার সাথে গলায় শাড়ি পেচিয়ে স্বামী স্ত্রী আত্ব:হত্যা করেছে।
এ বিষয়ে মৃত মিনজু আক্তারের পিতা আব্দুল মজিদ বাদি হয়ে থানায় একিটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে।
পারিবারিক সূত্রে আরো জানা যায়, মিনজু আক্তার বক্তারপুর এলাকায় প্রথম বিবাহ হয় তার ঘড়ে একটি ২ বছরের
কন্যা সন্তান রয়েছে।মিনজু পিতার বাড়িতে বেড়াতে আসলে ঈমান মিনজুকে অপহরন করে তুলে নিয়ে গিয়ে তাকে জুরপুর্বক বিয়ে করেন।তার পর থেকে তাদের দাম্পত্য জীবন কলহ লেগেই থাকতো। ঈমান আলীর প্রথম স্ত্রী বর্তমানে বিদেশে অবস্থান করেছ। ঈমান আলী, ও তার ভাই আমান আলী এলাকায়
মাদক সম্রাট হিসেবে পিরিচত রয়েছে। এবং তাদের বিরুদ্ধে একাদিক মাদকের মামলা রয়েছে।

এবিষয়ে সত্যতা নিশ্চিত করে কালীগঞ্জ থানার উপপরিদর্শক (এসআই) মাজহারুল হক বলেন, সকালে ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে পারিবারিক কলহের কারণে ফাঁস দিয়ে তারা আত্মহত্যা করেছে। এ ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে, নিহতেদের লাশ জুলন্ত অবস্থায় উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য শহিদ তাইজউদ্দিন মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পেরন করা হয়। ময়না তদন্তের রিপোর্ট আসলে পরবর্তী ব্যাবস্থা নেওয়া হবে।